বিশ্বকাপে ভারতের ভরাডুবির জন্য আইপিএল-কেই কাঠগড়ায় তুললেন কপিল, সানি

জন দেখেছেন : 30
0 0
পড়তে সময় লাগবে :4 মিনিট, 43 সেকেন্ড

বেঙ্গল এক্সপ্রেস নিউজ: টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে সেমিফাইনালে পৌঁছাতে পারেনি টিম ইন্ডিয়া। গতকাল আফগানিস্তান নিউজিল্যান্ডের কাছে হেরে যেতেই শেষ হয়ে যায় ভারতের বিশ্বকাপ অভিযান। বিদায়ের শুরু হয়েছিল বিশ্বকাপের ভারতের প্রথম ম্যাচে পাকিস্তানের কাছে হারার পর।

পরের ম্যাচে নিউজিল্যান্ডের কাছে হারার পরই বিশ্বকাপে ভারতের বিদায় নিশ্চিত হয়ে গিয়েছিল। যদিও সামান্য একটু সুযোগ ছিল, কিন্তু গতকাল নিউজিল্যান্ড আফগানিস্তানকে হারিয়ে দেওয়ায় বিরাট কোহলিদের সব আশা শেষ হয়ে যায়। এর পর বিভিন্ন মহল থেকেই ভারতীয় দলের পারফরমেন্স নিয়ে সমালোচনার ঝড় বইতে শুরু করে। এমনিতেই ২০১৩ সালের পর কোনও আইসিসি টুর্নামেন্টে ট্রফি জেতেনি টিম ইন্ডিয়া। বিরাট কোহলির নেতৃত্ব নিয়ে অনেকেই প্রশ্ন তুলেছেন। যদিও এই বিশ্বকাপের পরই টি-টোয়েন্টি দলের ক্যাপ্টেন্সি ছাড়তে চলেছেন বিরাট। তা স্বতেও সমালোচনা কমছে না। এবার টিম ইন্ডিয়ান পারফরমেন্স নিয়ে মুখ খুললেন ১৯৮৩ বিশ্বকাপ জয়ী দলের অধিনায়ক কপিল দেব।

রাখ-ঢাক না করেই ভারতের খারাপ পারফরমেন্সের জন্য আইপিএল-কে দায়ি করেছেন কপিল। তাঁর মতে দেশের হয়ে প্রতিনিধিত্ব করার চেয়ে আইপিএল খেলাকেই বেশি গুরত্ব দেওয়ায় ভারতের এই ভরাডুবি। এর প্রধান কারণ, আইপিএল খেললে প্রচুর টাকা পাওয়া যায়। টাকার প্রতি ঝোঁকের জন্যই দেশের জন্য খেলায় সেই পারফরমেন্স দিতে পারছেন না বিরাটরা। বিশ্বকাপে তারকা প্লেয়ারদের নিয়ে সবচেয়ে শক্তিশালী দল গড়ার পরও এই ব্যর্থতা নিয়ে বিসিসিআই- এর প্লেয়ারদের সাথে কথা বলে জানিয়েছেন কপিল দেব। তিনি আরও বলেছেন, ‘ক্রিকেটারদের উচিত দেশের হয়ে খেলে গর্বিত হওয়া। আমি আর্থিক দিকটা জানি না, তবে কোথাও মনে হচ্ছে সবাই দেশের হয়ে খেলার থেকেও আইপিএলকে বেশি গুরুত্ব দিচ্ছে। আমার মতে, আগে দেশের ক্রিকেট, তারপর ফ্র্যাঞ্চাইজি ক্রিকেট।

আমি বলছি না আইপিএল খেলার দরকার নেই। তবে বোর্ডের দায়িত্ব একটা সঠিক সূচি তৈরি করা।’ তিনি আরও বলেছেন, আগামি বছর অস্ট্রেলিয়ায় বসবে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের আসর। সেই কথা মাথায় রেখেই বিসিসিআই-এর উচিত এখন থেকে দল নির্বাচনের দিকে নজর দেওয়া। এবং খেলোয়াড়দের উদ্দেশ্যে বলেছেন, আইপিএল- এর থেকে দেশের হয়ে খেলায় ভালো পারফরমেন্স দেওয়ার দিকে নজর দিতে হবে। শুধু কপিল দেব নন, বিশ্বকাপে ভারতের এই দুর্দশার জন্য আইপিএলকে কাঠগড়ায় তুলেছেন সুনীল গাভাস্কারও। তিনি বলেছেন, ‘এই পর্যায়ে, যখন আমরা কাজের চাপ নিয়ে কথা বলি, সব বিষয় সহজে ভাবে সিদ্ধান্ত নেওয়ার কথা বলে থাকি।

তা হলে ভারতের কয়েকজন খেলোয়াড় কি আইপিএলের শেষ কয়েকটি ম্যাচ না খেলে থাকতে পারেননি? তাঁরা কি পারত না এই খেলা থেকে নিজেদের সরিয়ে রাখতে এবং ভারতের হয়ে বিশ্বকাপে নিজেদের সতেজ রাখতে? অবশ্য, এই ব্যাপারে তাঁরাই উত্তর দিতে পারবে। বিশেষ করে যখন আপনি জানেন, যে আপনি যোগ্যতা অর্জন করতে পারবেন না, তখন কিছু খেলোয়াড়দের নিজেদের সতেজ করার জন্য কি এক সপ্তাহ, বা ১০ দিনের বিরতি নেওয়া উচিত ছিল না?’

সংবাদটি শেয়ার করুন

Next Post

স্কুল কি আদৌ খুলবে! জনস্বার্থ মামলা দায়ের হল হাইকোর্টে

Mon Nov 8 , 2021
বেঙ্গল এক্সপ্রেস নিউজ: করোনা অতিমারীর জন্য সারা বিশ্বের প্রায় সব দেশেই লকডাউন ঘোষণা হয়েছিল। বাস, ট্রেন, অফিস, আদালত বন্ধ করে দেওয়া হয়। বাদ যায়নি স্কুল-কলেজ। সবকিছু বন্ধ করে দেওয়া হয়। প্রায় দেড় বছর ধরে স্কুল-কলেজের পঠন-পাঠন বন্ধ। পড়াশোনা শুরু হয় অনলাইনে। কিন্তু এখন পরিস্থিতি কিছুটা […]