২৪ ঘন্টার মধ্যেই ভোল বদলে কংগ্রেস প্রার্থী পার্থ মিত্র জানিয়ে দিলেন, তিনি তৃণমূলেই আছেন

Rate this post

বেঙ্গল এক্সপ্রেস নিউজ : ২৪ ঘণ্টা কাটতে না কাটতেই ভোলবদল ৮ নম্বর ওয়ার্ডের বিদায়ী তৃণমূল কাউন্সিলর তথা কলকাতা পুরভোটে ওই ওয়ার্ডেরই কংগ্রেস প্রার্থী পার্থ মিত্রর। গত শুক্রবার তৃণমূল কংগ্রেস কলকাতা পুরভোটের প্রার্থী তালিকা ঘোষণা করে। কিন্তু ৮ নম্বর ওয়ার্ডের ১০ বছরের কাউন্সিলর পার্থ মিত্রকে প্রার্থী করেনি তৃণমূল।

তাঁর বদলে ওই ওয়ার্ডে প্রার্থী হয়েছেন শ্যামপুকুর বিধানসভার বিধায়ক তথা নারী ও শিশু সমাজকল্যাণ দফতরের মন্ত্রী শশী পাঁজার কন্যা পূজা পাঁজা। তারপরই শনিবার ৬৬টি ওয়ার্ডের প্রার্থী তালিকা ঘোষণা করে কংগ্রেস। সেই তালিকায় দেখা যায়, ৮ নম্বর ওয়ার্ডে প্রার্থী হয়েছেন তৃণমূলের বিদায়ী কো-অর্ডিনেটর পার্থ মিত্র। কংগ্রেসের প্রাক্তন বিধায়ক তথা নেতা নেপাল মাহাতো জানিয়ে দেন, পার্থ মিত্র নাকি কংগ্রেসে যোগদান করেছেন। এই খবর প্রকাশ্যে আসতেই রবিবার সকালে পার্থ মিত্রের বাড়িতে পৌঁছে যান ফিরহাদ হাকিম। তারপরই পার্থ মিত্র জানিয়ে দেন, তিনি কংগ্রেসে নয়, তৃণমূল কংগ্রেসেই আছেন। তাঁকে না জানিয়েই নাকি প্রার্থী করেছে কংগ্রেস।

তিনি কংগ্রেসের হয়ে ভোটে লড়বেন না। শুধু তাই নয়, ফিরহাদ হাকিমকে সঙ্গে নিয়ে তাঁর চাঞ্চল্যকর দাবি, তাঁর নামে মিথ্যা প্রচার করা হয়েছিল! ফিরহাদ হাকিমের পাশে দাঁড়িয়ে পার্থ মিত্র বলেছেন, ‘মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের নেতৃত্বে এবং ফিরহাদ হাকিমের আশীর্বাদে আমি তৃণমূল কংগ্রেসে আছি। প্রেস এসে আমার কাছে অনেক কথা বলে গেছে। কংগ্রেস থেকেও এসেছিল, তারা বলছে যে বায়োডাটা দাও। আমি দিইনি। তারা আমার নামে মিথ্যে প্রচার করেছে। আমি টিকিট পাইনি কী হয়েছে, আমার দাদা আমার জন্য করেছিল, আমি এতেই খুশি। ফল যাই হোক, আমি তৃণমূলেই আছি।’ ফিরহাদ হাকিম বলেছেন, ‘পার্থ তৃণমূলে ছিল, তৃণমূলেই আছে। কোনও বিভ্রান্তির বিষয় নেই। দলেই থাকবে, অন্যান্য কাজ করবে।

যিনি এই ওয়ার্ডে তৃণমূলের প্রার্থী হয়েছেন, তাঁকে জয়ী করার জন্য কাজ করবেন।’ যদিও এই নিয়ে কংগ্রেসের পক্ষ থেকে এখনও কোনও প্রতিক্রিয়া পাওয়া যায়নি। এদিকে প্রার্থী তালিকা নিয়ে কংগ্রেসের মধ্যেও কোন্দল চরমে উঠেছে। রবিবার সন্ধ্যায় প্রদেশ কংগ্রেস ভবনে বিক্ষোভ দেখালেন দলীয় কর্মী-সমর্থকরা। বিক্ষোভকারীদের দাবি টিকিট দেওয়া নিয়ে দুর্নীতি হচ্ছে। যাঁরা দীর্ঘদিন ধরে দল করছেন, তাঁদের প্রাধান্য না দিয়ে নতুনদের টিকিট দেওয়া হচ্ছে বলে অভিযোগ তাঁদের। প্রদেশ কংগ্রেস ভবনে তালাও ঝুলিয়ে দেন বিক্ষোভকারীরা। জানা গিয়েছে, ১৪০ নম্বর ওয়ার্ডের কংগ্রেস কর্মী-সমর্থকরাই বিক্ষোভ দেখিয়েছেন। বিক্ষোভকারীদের বক্তব্য, ১৪০ নম্বর ওয়ার্ডে যাঁকে প্রার্থী করা হয়েছে তিনি ওই ওয়ার্ডের বাসিন্দা নন। স্থানীয় নেতৃত্বের তরফ থেকে যে তিনটি নাম পাঠানো হয়েছিল তা অগ্রাহ্য করেছে প্রদেশ কংগ্রেসের শীর্ষ নেতৃত্ব।

সংবাদটি শেয়ার করুন
সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, Twitter এবং Instagram পেজ

Next Post

টোকেন চালু হওয়ায় কলকাতা মেট্রোয় বাড়ল যাত্রী সংখ্যা

Sun Nov 28 , 2021
বেঙ্গল এক্সপ্রেস নিউজ : করোনা অতিমারীর জন্য বন্ধ রাখা হয়েছিল কলকাতার মেট্রো পরিষেবা। এরপর ধাপে ধাপে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আসায় পুনরায় মেট্রো পরিষেবা চালু হয়েছে। মেট্রো পরিষেবা চালু হলেও টোকেন ব্যবস্থা বন্ধ ছিল। যাত্রীদের সুবিধার্থে আবার টোকেন চালু হয়েছে। দেখা যাচ্ছে টোকেন ব্যবস্থা চালু হওয়ায় যাত্রী […]

আপনার পছন্দের সংবাদ