মাঝ সমুদ্রে ক্রুজে নিষিদ্ধ মাদক পার্টি থেকে গ্রেফতার শাহরুখ পুত্র আরিয়ান

জন দেখেছেন : 22
0 0
পড়তে সময় লাগবে :5 মিনিট, 44 সেকেন্ড

বেঙ্গল এক্সপ্রেস নিউজ : নাইট পার্টিতে নিষিদ্ধ মাদক সেবন করে গ্রেফতার হলেন বলিউড তারকা শাহরুখ খানের পুত্র আরিয়ান খান! মুম্বই থেকে গোয়ামুখী বিলাসবহুল ক্রুজে বিশেষ অভিযান চা‌লিয়ে ১০ জনকে আটক করেছেন নার্কোটিক্স কন্ট্রোল ব্যুরো (এনসিবি)-র আধিকারিকেরা। আটক করা হয়েছে প্রচুর নিষিদ্ধ মাদকসামগ্রী। শনিবার রাতে এনসিবি-র হাতে গ্রেফতার হওয়া ওই ১০ জনের মধ্যে দুই মহিলা সহ বলিউড সুপারস্টার শাহরুখ খানের পুত্র আরিয়ান ছাড়াও ছিলেন শক্তি কাপুরের ছেলে সিদ্ধান্ত কাপুর।

তাঁরাও ওই নাইট পার্টিতে নিষিদ্ধ মাদক সেবন করছিলেন বলে অভিযোগ। শনিবার রাতে যাত্রীর ছদ্মবেশে ২০০৮ ব্যাচের আইআরএস অফিসার সমীর ওয়াংখেড়ের নেতৃত্বে কর্ডেলিয়া নামে বিলাসবহুল ওই ক্রুজে ছিলেন এনসিবি-এর আধিকারিকরা। মুম্বই থেকে গোয়ার উদ্দেশে ক্রুজ রওনা দেওয়ার কিছুক্ষণ পরই শুরু হয় নাইট পার্টি। আগে থেকেই এনসিবি’র কাছে খবর ছিল, মাঝসমুদ্রে পার্টি হবে এবং সেখানে নিষিদ্ধ মাদক সেবন করা হবে। পার্টির মাঝপথে যখন সকলেই মাদকসেবনে মত্ত, তখন তাঁদের হাতেনাতে ধরে ফেলেন এনসিবি’র আধিকারিকরা। বাজেয়াপ্ত করা হয় প্রচুর টাকার নিষিদ্ধ মাদক। তার মধ্যে কোকেন, হাশিশ, এমডিএমএ-র মতো মাদকও রয়েছে। এনসিবি সূত্রে খবর, সেই পার্টিতে জামাকাপড়, মহিলাদের ব্যাগের হাতলের মধ্যে লুকিয়ে রাখা হয়েছিল মাদক। আরিয়ান, সিদ্ধান্তদের সঙ্গেই ওই রেভ পার্টি থেকে আটক করা হয় আরবাজ মার্চেন্ট, মুনমুন ধর্মেচা, ইশমিত সিংহ, মোহক জয়সওয়াল, বিক্রম ছোকার, গোমিত চোপড়াকে। মুম্বইয়ের এনসিবি দফতরে শনিবার রাত থেকে টানা জিজ্ঞাসাবাদ করা হয় আরিয়ানকে। প্রায় ১৬ ঘণ্টা জেরার পর অবশেষে প্রমোদতরীতে মাদক নেওয়ার কথা স্বীকার করেন আরিয়ান।

শাহরুখ-পুত্রের লেন্স রাখার বাক্স থেকেও নাকি মাদক উদ্ধার হয়েছে। এনসিবি সূত্রে খবর, জেরার মুখে মাদক নেওয়ার কথা স্বীকার করার পাশাপাশি অনুশোচনা প্রকাশ করেছেন আরিয়ান। নিজের দোষ স্বীকার করে তিনি নাকি দাবি করেছেন, অতীতে তিনি কখনও এমন কিছু করেননি। জেরার মুখে আরিয়ান জানিয়েছেন, এই নাইট পার্টির প্রবেশ মূল্য এক লক্ষ টাকা হলেও তাঁর নাম ‘ভিভিআইপি’ তালিকায় থাকায় কোনও রকম প্রবেশমূল্য ছাড়াই মাদকপার্টিতে প্রবেশ করার ছাড়পত্র পেয়েছিলেন তিনি। গ্রেফতারের পর তাঁকে স্বাস্থ্য পরীক্ষার জন্য জেজে হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হবে বলে জানা গিয়েছে। এনসিবি সূত্রে খবর, খতিয়ে দেখা হচ্ছে আরিয়ানের হোয়াটসঅ্যাপ চ্যাট।

তিনি কাদের সঙ্গে কথা বলতেন, যোগাযোগ রাখতেন সবকিছুই খতিয়ে দেখা হচ্ছে। কোনও মাদকচক্রের সঙ্গে তিনি যুক্ত কি না, তা-ও জানার চেষ্টা চলছে। বন্ধুদের সঙ্গে বিভিন্ন গ্রুপে তিনি কী ধরনের আলোচনা করতেন, তাও এখন খতিয়ে দেখছেন তদন্তকারীরা। আরিয়ানের বিরুদ্ধে কোনও তথ্য পাওয়া গেলে তাঁর বিরুদ্ধে ‘নারকোটিক ড্রাগস অ্যান্ড সাইকোট্রপিক সাবস্ট্যান্সেস’ (এনডিপিএস) আইনে মামলা দায়ের হতে পারে বলে খবর।

পার্টিতে যাঁরা শুধু মাদক সেবন করেছেন কিন্তু কোনও লেনদেন করেননি, শুধুমাত্র তাঁদেরই এনডিপিএস কোর্টে তোলা হবে। ব্যবহৃত মাদকের পরিমাণ যদি কম হয় তাহলে জামিনও পেতে পারেন তাঁরা। এই রেভ পার্টির ৬ উদ্যোক্তাকেও জিজ্ঞাসাবাদ করা হবে। সুশান্ত সিং রাজপুতের মৃত্যুর পরই যথেষ্ট তৎপর হয়ে ওঠে এনসিবি। সুশান্তের মৃত্যুর পরেই বলিউডের বিভিন্ন পার্টিতে তারকাদের ব্যাপক হারে মাদক সেবনের ছবি সামনে আসে! মাদক কাণ্ডে উঠে আসতে থাকে একের পর এক তারকার নাম। জেরার মুখে পড়তে হয় দীপিকা পাড়ুকোনে, শ্রদ্ধা কাপুর, রাকুলপ্রীতদের মতো তারকাদের। এবার সেই তালিকায় যুক্ত হল শাহরুখ পুত্রের নামও।

সংবাদটি শেয়ার করুন

Next Post

আদালতের নির্দেশে অধ্যক্ষের সঙ্গে দেখা করতে বিধানসভায় গেলেন সিবিআই আধিকারিকরা

Mon Oct 4 , 2021
বেঙ্গল এক্সপ্রেস নিউজ : কলকাতা হাইকোর্টের নির্দেশ মেনে অবশেষে স্পিকার বিমান বন্দ্যোপাধ্যায়ের সঙ্গে দেখা করতে বিধানসভায় গেলেন সিবিআই আধিকারিকরা। নারদ মামলায় রাজ্যপালের অনুমতি নিয়ে রাজ্যের দুই মন্ত্রী সুব্রত মুখোপাধ্যায় ও ফিরহাদ হাকিম এবং বিধায়ক মদন মিত্রের বিরুদ্ধে চার্জশিট জমা দিয়েছিল সিবিআই। স্পিকারকে না জানিয়ে কেন […]