বিরোধীশূন্য বিধানসভাতেই শপথ নিলেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়-সহ সামশেরগঞ্জ ও জঙ্গিপুরের বিধায়ক
Connect with us

বাংলার খবর

বিরোধীশূন্য বিধানসভাতেই শপথ নিলেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়-সহ সামশেরগঞ্জ ও জঙ্গিপুরের বিধায়ক

Rate this post

বেঙ্গল এক্সপ্রেস নিউজ : ভবানীপুর উপনির্বাচনে রেকর্ড ব্যবধানে জিতে বৃহস্পতিবার বিধানসভায় তৃতীয়বারের জন্য বিধায়ক পদে শপথ নিলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। আজ দুপুর দু’টো নাগাদ মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের সঙ্গে শপথ নেন জঙ্গিপুর ও সামশেরগঞ্জ উপনির্বাচনে জয়ী দুই বিধায়ক জাকির হোসেন ও আমিরুল ইসলাম। যদিও এদিন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের শপথ গ্রহণ অনুষ্ঠান বয়কট করেন বিজেপি বিধায়করা। খাতায় কলমে বিজেপির বিধায়ক মুকুল রায় হাজির থাকলেও বাকি কোনও গেরুয়া শিবিরের বিধায়ক হাজির ছিলেন না।

তাই বিরোধীশূন্য বিধানসভাতেই এদিন শপথ নিলেন তিনজনে। এদিনের এই শপথ গ্রহণ অনুষ্ঠানকে কেন্দ্র করে আরও এক বেনজির ঘটনার সাক্ষী থাকল রাজ্য সহ গোটা দেশ। মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়, জাকির হোসেন ও আমিরুল ইসলামকে শপথবাক্য পাঠ করালেন রাজ্যপাল জগদীপ ধনকড়। জনপ্রতিনিধিত্ব আইনের ধারায় সেই ক্ষমতা নিজের হাতে নিয়েছেন তিনি। সম্প্রতি রাজভবন থেকে বিধানসভার সচিবালয়ে সেই বার্তা পাঠানো হয়েছিল। তার পরেই পরিষদীয় দফতরের মন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায় জানান, রাজ্যপাল মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় সহ তিন জয়ী বিধায়ককে শপথবাক্য পাঠ করাবেন। এদিনের এই শপথ গ্রহণ অনুষ্ঠানকে ঘির বিধানসভায় বেশ জাঁকজমক আয়োজন করা হয়েছিল।

কিন্তু শাসকদলের বিধায়কের উপস্থিতিও এদিন বেশ কম ছিল। বিধানসভা সূত্রে খবর, উত্তরবঙ্গে বৃষ্টি এবং একাধিক জেলায় বন্যায় কারণে শাসকদলের অনেক বিধায়ক আসতে পারেননি। শপথ গ্রহণ অনুষ্ঠান বয়কটের কারণ হিসেবে বিজেপির পক্ষ থেকে বলা হয়েছে, দেরিতে আমন্ত্রণ পাওয়ার কারণে, এবং এই অনুষ্ঠানকে গুরুত্বপূর্ণ না মনে করায় ‘উপেক্ষা’ করা হয়েছে। আজকের এই শপথ গ্ৰহণ অনুষ্ঠানে আমন্ত্রণ জানানো হয়েছিল সব বিধায়কদের পাশাপাশি শাসকদলের সমস্ত সাংসদকেও। যেহেতু উপনির্বাচনে ভবানীপুরের প্রত্যেকটি ওয়ার্ড থেকেই মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় লিড পেয়েছেন, তাই ভবানীপুর বিধানসভার অন্তর্গত কলকাতা পুরসভার ৮ ওয়ার্ডের পুর কো-অর্ডিনেটরদেরও আমন্ত্রণপত্র পাঠানো হয়েছিল।

Advertisement