এক সঙ্গে দুই হাতে করোনার জোড়া টিকা! হাসপাতালের বিরুদ্ধে লিখিত অভিযোগ বলাগড়ের যুবকের
Connect with us

বাংলার খবর

এক সঙ্গে দুই হাতে করোনার জোড়া টিকা! হাসপাতালের বিরুদ্ধে লিখিত অভিযোগ বলাগড়ের যুবকের

Rate this post

বেঙ্গল এক্সপ্রেস নিউজ : গিয়েছিলেন করোনার প্রথম টিকা নিতে। কিন্তু একই সঙ্গে দু’বার ভ্যাকসিন দেওয়া হল এক যুবককে। হাসপাতাল কর্তৃপক্ষের কাছে লিখিত অভিযোগও জানিয়েছেন ওই যুবক। হুগলির বলাগড় থানার গুপ্তিপাড়ার বাসিন্দা সাইফুদ্দিন দফাদার কিছুদিন আগেই পান্ডুয়ায় ঘোড়াগাছা তলায় শ্বশুর বাড়িতে গিয়েছিলেন।

সোখানে থাকেই গত ২০ অক্টোবর পান্ডুয়া গ্রামীণ হাসপাতালে কোভিশিল্ডের প্রথম ডোজ নেন। সাইফুদ্দিনের অভিযোগ, পান্ডুয়া হাসপাতালে যখন তিনি ভ্যাকসিন নিতে যান তখন স্বাস্থ্যকর্মীরা তাঁকে ডান হাতে একবার ভ্যাকসিন দেওয়ার পরেই বাঁ হাতে আরও একবার ভ্যাকসিন দেন। সঙ্গে সঙ্গেই তিনি স্বাস্থ্যকর্মীকে জানালে তাঁরা বিষয়টি অগ্রাহ্য করেন। সাইফুদ্দিন জানিয়েছেন, একজন মহিলা স্বাস্থ্যকর্মী গল্প করতে করতে তাঁর দুই হাতে দু’টো টিকা দেন। ব্যাপারটা জানালে ওই স্বাস্থ্যকর্মী তাঁকে জ্বরের ওষুধ দিয়ে বাড়ি পাঠিয়ে দেন। এরপরই সাইফুদ্দিনের শারীরে সমস্যা দেখা দেয়। তিনি জানিয়েছেন, ‘দুটো টিকা নেওয়ার পর আমার হাত-পা ব্যথা হচ্ছে। বার বার গলা শুকিয়ে যাচ্ছে। জলপিপাসা পাচ্ছে। রোদে বারোলেই অস্বস্তি হচ্ছে। ডাক্তারবাবু ওষুধ লিখে দিয়েছেন।

বলেছিলেন কোনও অসুবিধে হলে হাসপাতালে ভর্তি হতে।’ গাফিলতির কথা স্বীকার করে নিলেও পান্ডুয়া ব্লক স্বাস্থ্য আধিকারিক শেখ মঞ্জুর আলম জানিয়েছেন, ওই ব্যক্তি একবার টিকা নেওয়ার পর অন্য একটি টেবিলে গিয়ে বসে পড়াতেই এই ভুল হয়েছে। এবং তিনি দ্বিতীয়বার টিকা দেওয়ার সময় বাধাও দেননি। শুক্রবার চিকিৎসার জন্য পান্ডুয়া গ্রামীণ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে ওই যুবককে। তাঁর শারীরিক অবস্থার উপর নজর রাখা হচ্ছে বলে জানিয়েছেন ব্লক স্বাস্থ্য আধিকারিক।

Advertisement
Continue Reading
Advertisement